1. admin@hvoice24.com : admin :
মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:০৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :

আপনাদের ভালোবাসা কখনো ভুলবো না,দায়বদ্ধতা আরও বেড়ে গেল-মোজাহিদ

স্টাফ রিপোর্টার
  • প্রকাশিত : বৃহস্পতিবার, ১৪ মার্চ, ২০২৪
  • ১৮৫৭ বার পঠিত

ফ্রান্স প্রবাসী ছাতক-দোয়ারা জনকল্যাণ পরিষদের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি বিশিষ্ট সমাজসেবী ও শিক্ষানুরাগী জনাব মনোয়ার হোসাইন (মোজাহিদ) বলেছেন, জন্মভূমি, নাড়ির টান কখনো ভুলা যায় না। আজ আমি গর্বিত আপনাদের পক্ষ থেকে সংবর্ধিত এমন মূল্যায়ন পেয়ে এ ভালোবাসা কখনো ভুলবো না। আজ থেকে আমার দায়বদ্ধতা আরও বেড়ে গেল। কলেজের সাথে ছিলাম ভবিষ্যতেও থাকব, দেশের উন্নয়নে সংগঠনের যে কোন সামাজিক কর্মকান্ডে কাজ করে যাবো।

কলেজের পক্ষ থেকে সম্মাননা প্রদান

আয়োজকদের ধন্যবাদ জানিয়ে সংবর্ধিত অতিথি জনাব মনোয়ার হোসাইন (মোজাহিদ) কলেজ প্রতিষ্ঠাতা পরিবারের সদস্যদের ও উনার দুই শিক্ষক চেয়ারম্যান আওলাদ হোসেন ও অধ্যক্ষ মেঘলাল বৈদ্য এবং বন্ধু জসীমউদ্দিনসহ কলেজের ম্যানেজিং কমিটির সদস্য ও শিক্ষক শিক্ষার্থীদের কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

কলেজ পরিদর্শন

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ও সংবর্ধিত অতিথি বিশিষ্ট সমাজসেবী ও শিক্ষানুরাগী জনাব মনোয়ার হোসাইন (মোজাহিদ) তার ব্যক্তিগত তহবিল থেকে কলেজের উন্নয়নের জন্য ১লক্ষ টাকা দেওয়ার ঘোষণা দেন ও তার সার্বিক সহযোগিতা অব্যাহত রাখার আশ্বাস প্রদান করেন।

বৃহস্পতিবার (১৪ মার্চ) ভাতগাঁও আইডিয়াল কলেজের পক্ষ থেকে ফ্রান্স প্রবাসী ছাতক-দোয়ারা জনকল্যাণ পরিষদের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি বিশিষ্ট সমাজসেবী ও শিক্ষানুরাগী জনাব মনোয়ার হোসাইন (মোজাহিদ) কে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়।

সংবর্ধনা উপলক্ষে কলেজ অডিটোরিয়ামে আলোচনা সভায় কলেজের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি চেয়ারম্যান আওলাদ হোসেনে’র সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন অত্র কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ জনাব মেঘলাল বৈদ্য, সাহিন তালুকদার,গিয়াসউদ্দিন মেম্বার, আবুল বসরসহ কলেজের শিক্ষক শিক্ষার্থীরা।

অফিসে আলোচনায় মনোয়ার হোসাইন মোজাহিদ

বক্তারা বলেন, প্রবাসীরা দেশের সম্পদ। দেশের অর্থনীতির যেসব খাত নিয়ে আমরা গর্ব করতে পারি, তার একটি হচ্ছে প্রবাসীদের পাঠানো রেমিটেন্স।তাদের সর্বোচ্চটুকু দিয়ে যান পরিবার ও দেশকে। এ জন্য বক্তরা প্রবাসীদের ধন্যবাদ ও অভিনন্দন জানান।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি-কে কলেজের পক্ষ থেকে সম্মাননা স্মারক প্রদান করা হয়।

উল্লেখ্য, এলাকাবাসীর স্বপ্ন পূরণে ভাতগাঁও গ্রামের কৃতী সন্তান অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী মোহাম্মদ শামীম আহমদ ও তার পরিবারের সার্বিক সহযোগিতায় শিক্ষার আলো জাগরণে এলাকায় কলেজটি পরিচালিত হচ্ছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা